আবাসিক হোটেলে মিললো দুই বস্তা কনডম, আটক ১০

0 ১১৫

কুমিল্লা প্রতিনিধি:

কুমিল্লা সদর উপজেলার আলেখারচর বিশ্বরোডে ‘তানিম’ ও ‘বৈশাখী’ নামে দুইটি আবাসিক হোটেলে অভিযান চালিয়ে খদ্দেরসহ ১০ নারী-পুরুষকে আটক করেছে র‍্যাব।

কাল জেলা প্রশাসনের নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট জয় রায় ও র‌্যাব-১১, সিপিসি-২-এর ভারপ্রাপ্ত কমান্ডার সহকারী পুলিশ সুপার প্রণব কুমারের নেতৃত্বে এ অভিযান পরিচালিত হয়। প্রেস বিজ্ঞপ্তির মাধ্যমে র‌্যাব-১১, সিপিসি-২-এর ভারপ্রাপ্ত কমান্ডার ও সহকারী পুলিশ সুপার প্রণব কুমার বিষয়টি নিশ্চিত করেন।

র‌্যাব জানায়, গোপন সংবাদের ভিত্তিতে মঙ্গলবার দুপুরে র‌্যাব-১১ সিপিসি-২-এর উপ-পরিচালক প্রণব কুমারের নেতৃত্বে আলেখারচর বিশ্বরোডে অবস্থিত আবাসিক হোটেল ‘তানিম’ ও ‘বৈশাখীর’ দোতলার একটি ড্রয়ারে তল্লাশি চালিয়ে ১৩৫ পিস ইয়াবা, দুই বস্তা কনডম ও নগদ দুই লাখ ২৭ হাজার টাকাসহ হোটেল ম্যানেজার আব্দুস সাত্তারকে আটক করা হয়। আটককৃত আব্দুস সাত্তার কুমিল্লার হোমনা উপজেলার শ্রীনগর গ্রামের মৃত কানু মিয়ার ছেলে।

বিষয়টি নিশ্চিত করে র‌্যাব-১১, সিপিসি-২-এর ভারপ্রাপ্ত কমান্ডার ও সহকারী পুলিশ সুপার প্রণব কুমার জানান, ভবিষ্যতে এ ধরনের অভিযান অব্যাহত থাকবে।

অভিযানের সময় দুটি হোটেলের বিভিন্ন কক্ষে তল্লাশি চালিয়ে অনৈতিক কর্মকাণ্ডে জড়িত থাকায় তিনজন যুবক, দুইজন খদ্দের ও চারজন তরুণীকে আটক করা হয়। পরে ভ্রাম্যমাণ আদালতের মাধ্যমে আটককৃত নয়জনকে ২০০ টাকা করে জরিমানা করা হয়। ভ্রাম্যমাণ আদালত পরিচালনা করেন কুমিল্লা জেলা প্রশাসক কার্যালয়ের নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট জনি রায়।

অরিন▐ মুক্তজমিন